Menu

পাকিস্তানে আল্লামা তাকি উসমানীর গাড়িবহরে হামলা, নিহত ২

সাতমাথা অনলাইন ডেস্ক: পাকিস্তানের করাচিতে বিশ্বখ্যাত আলেম আল্লামা তাকি উসমানীর গাড়িবহরে গুলিবর্ষণের ঘটনা ঘটেছে। তাকি উসমানীকে লক্ষ্য করে চালানো হামলায় তিনি ও তার স্ত্রী প্রাণে বেচেঁ গেলেও ২জন নিহত হয়েছেন। নিহত ২ জন তাকি উসমানির নিরাপত্তারক্ষী বলে জানা যায়। শুক্রবার দুপুরে করাচিতে ভয়াবহ এ হামলার ঘটনা ঘটে। খবর ডন ও জি নিউজের।

জানা যায়, তাকি উসমানিকে বহনকারী গাড়িসহ অপর একটি গাড়িতে হামলা চালানো হয়। এতে তাকি উসমানী ও তার স্ত্রী গুরুতর আহত হয়েছেন। পুলিশ তাদেরকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করেছে। তবে হামলার স্থান সম্পর্কে পাকিস্তানের পুলিশের কয়েকটি বক্তব্য এসেছে।

পাকিস্তানের প্রভাবশালী গণমাধ্যম ডন জানায়, প্রথমে পুলিশের পক্ষ থেকে বলা হয়েছিল হাইওয়ের ফয়সাল নার্সারির কাছে গুলিবর্ষণের ঘটনা ঘটে, পরে বলা হয়েছে গুলশান ইকবালের নাপাপুল এলাকার কাছে গুলিবর্ষণ হয়।

দারুল উলুম করাচির মুখপাত্র তালহা রহমানী জানিয়েছেন, আল্লামা তাকি উসমানী প্রাণে বেচেঁ গেছেন। বর্তমানে তিনি হাসপাতালে রয়েছেন।

করাচির এডিশনাল আইজি আমির শেখ বলেছেন, এটি জঙ্গিবাদী কোনো হামলা নয়। পাকিস্তান ও করাচিকে অশান্ত করার পরিকল্পিত ষড়যন্ত্র।

সিন্ধু প্রদেশের আইজি গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন, তাকি উসমানীকে লক্ষ্য করে গুলিবর্ষণ করা হলেও তিনি নিরাপদে রয়েছেন।

আল্লামা তাকি উসমানী বিশ্বখ্যাত মুসলিম স্কলার হিসেবে পরিচিত। আরব বিশ্বসহ পুরো বিশ্বের মুসলিম সমাজে ব্যাপক জনপ্রিয় তিনি।

দারুল উলুম করাচির এ ভাইস প্রিন্সিপাল পাকিস্তানের প্রথম গ্রান্ড মুফতি শফি রহ. এর ছেলে এবং পাকিস্তানের বর্তমান গ্যান্ড মুফতি রফি উসমানির ছোট ভাই। তিনি পাকিস্তান সুপ্রিমকোর্টের শরীয়া বেঞ্চের সাবেক বিচারপতি।

বিজ্ঞাপনের জন্য যোগাযোগ করুন।

No comments

Leave a Reply

ten − 7 =

সম্পাদকীয়

    উপ-সস্পাদকীয়

    সংবাদ আর্কাইভ

    সংবাদ